শিরোনাম
গুলিস্তানে তৈরি হতো ফোন, লেখা ‘মেড ইন চায়না-ফিনল্যান্ড’ বাংলাদেশকে ২৮৫৪ কোটি টাকা ঋণ দিলো বিশ্বব্যাংক ইউক্রেনকে অস্ত্র দেয়া বন্ধ করুন: পশ্চিমা বিশ্বকে ব্রিটিশ রাজনীতিক টাঙ্গাইলে বাবাকে মেরে মসজিদের মাইকে প্রচার, ছেলে আটক খুলনা-মংলা পোর্ট রেলপথ ডিসেম্বরে চালু হবে : রেলপথ মন্ত্রী আয়মান আল-জাওয়াহিরি: আল-কায়েদা নেতা মার্কিন ড্রোন হামলায় নিহত হয়েছেন বলে খবর প্রচার বিবিসির আমেরিকাকে সরাসরি রাশিয়ার ‘প্রধান হুমকি’ বলে ঘোষণা দিল মস্কো যুদ্ধের প্রস্তুতি নিচ্ছে চীন আমাদের গচ্ছিত অর্থ বিনা শর্তে অবিলম্বে ফেরত দিন: আমেরিকাকে তালেবান ‘ইসরাইল এখন আর লেবাননে আগ্রাসন চালানোর সাহস পায় না’
শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২, ১১:২৯ পূর্বাহ্ন

আফগানিস্তানে মসজিদে বোমা হামলায় নিহত ৬০, দায় নিল আইএস

/ ২৯০ পঠিত
প্রকাশের সময় : শনিবার, ৯ অক্টোবর, ২০২১

মিডিয়া ডেস্ক : আফগানিস্তানের কুন্দুজ শহরে শিয়াদের একটি মসজিদে গতকাল শুক্রবার বোমা হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৬০ জনে ঠেকেছে। রাশিয়ান নিউজ অ্যাজেন্সির বরাত দিয়ে সংবাদ সংস্থা এএনআই এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরাকে উদ্ধৃত করে স্পুটনিক বলছে, ওই ঘটনায় ১০৭ জন আহত হয়েছে। কুন্দুজ প্রদেশের শিয়া মসজিদে আত্মঘাতী বোমা হামলার দায় স্বীকারে করেছে জঙ্গিগোষ্ঠী আইএস। শনিবার এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়র্টাস।

দেশটির উত্তরাঞ্চলীয় কুন্দুজ প্রদেশের রাজধানী কুন্দুজ শহরের ওই মসজিদে গতকাল জুমার নামাজের জমায়েতে বোমা হামলার ঘটনাটি ঘটে। আফগানিস্তানে তালেবানের নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা ও দেশটি থেকে মার্কিন নেতৃত্বাধীন বিদেশি সেনা প্রত্যাহারের পর এটি সবচেয়ে বড় রক্তক্ষয়ী হামলার ঘটনা।

এমএসএফ হাসপাতালে কর্মরত এক আন্তর্জাতিক সহায়তাকর্মী নিহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেন। তিনি বলেন, ‘শত শত মানুষ হাসপাতালের মূল ফটকে ভিড় করে স্বজনদের জন্য কান্নাকাটি করছে। তবে সশস্ত্র তালেবান সদস্যরা ফের বিস্ফোরণের আশঙ্কায় মানুষকে জড়ো হতে বাধা দিচ্ছে।’

তালেবান ক্ষমতায় আসার পর বেশ কয়েকটি হামলার দায় ইসলামিক স্টেট (আইএস) স্বীকার করেছে। একপর্যায়ে গতকালের হামলার ব্যাপারে ওই গোষ্ঠী দায় নিল।

আহত ব্যক্তিদের রক্ত দেওয়ার জন্য দ্রুত প্রাদেশিক হাসপাতালে ছুটে যাওয়া স্থানীয় ব্যবসায়ী জালমাই আলোকজাই যা দেখেছেন সেটাকে ‘ভয়াবহ দৃশ্য’ অভিহিত করেছেন। তিনি বলেন, অ্যাম্বুল্যান্সগুলো ঘটনাস্থল থেকে মানুষের মাথা সংগ্রহ করছিল।

কুন্দুজের ডেপুটি পুলিশ প্রধান দোস্ত মোহাম্মদ ওবায়দা বলেন, বোমা হামলার শিকার বেশির ভাগ মানুষ মারা গেছে। কোনো আত্মঘাতী বোমা হামলাকারী মসজিদে নামাজিদের ভিড়ে মিশে গিয়ে বিস্ফোরণটি ঘটিয়ে থাকতে পারে বলে তার ধারণা। এরই মধ্যে এ সংক্রান্ত তদন্ত শুরু হয়ে গেছে বলে জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।

সূত্র: রয়টার্স।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ